18 C
Dhaka

ধাওয়া খেয়ে র‍্যাবের গাড়িকে পিকআপের ধাক্কা, ২ র‍্যাব সদস্যসহ নিহত ৩

প্রকাশিত:

বাংলাদেশ পুলিশ, সেনা, নৌ ও বিমান বাহিনীর চৌকস সদস্যদের নিয়ে গঠিত এলিট ফোর্স র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ন (র‍্যাব) মাদকের বিরুদ্ধে নিয়মিত অভিযান চালিয়ে আসছে। হরহামেশাই অপরাধীদের পাকরাও করে খবরের শিরোনাম হয়ে আসছে র‍্যাব। এবারও খবরের শিরোনামে র‍্যাব। কিন্তু মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় নিহত হয়ে।

র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থেকেই দেশের সার্বিক আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সমুন্নত রাখার লক্ষ্যে সব ধরনের অপরাধীকে আইনের আওতায় নিয়ে আসার ক্ষেত্রে অগ্রণী ভূমিকা পালন করে আসছে।

র‍্যাব নিয়মিত জঙ্গী, সন্ত্রাসী, সংঘবদ্ধ অপরাধী, অস্ত্রধারী অপরাধী, ছিনতাইকারীসহ মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়ে আসছে। “চলো যাই যুদ্ধে, মাদকের বিরুদ্ধে” স্লোগানকে সামনে রেখে মাদক নির্মূলে র‍্যাব মাদকবিরোধী অভিযান অব্যাহত রেখেছে।

এরই ধারাবাহিকতায় আজ শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর ভোরে মাগুরা সদর উপজেলার রাউতড়া সাঁইত্রিশ নামক এলাকায় এক মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় ঝিনাইদহ র‍্যাব-৬ এর দুজন সদস্য নিহত হয়েছেন। তারা ফেনসিডিল বহনকারী একটি পিকআপ ভ্যানকে ধাওয়া করছিলেন। দুর্ঘটনায় পিকআপ ভ্যান চালকও নিহত হন।এছাড়া আরেকজন র‍্যাব সদস্য গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

নিহত দুজন র‍্যাব সদস্যের মধ্যে একজন র‍্যাবের কর্পোরাল আনিসুর রহমান (৩৬) এবং অপরজন কনস্টেবল ওমর ফারুক (৩৫)। এছাড়া গুরুতর আহত র‍্যাব সদস্যের নাম মো. নাজমুল। দুর্ঘটনায় নিহত ফেনসিডিল বহনকারী পিকআপ ভ্যানের নিহত চালকের নাম আনোয়ার হোসেন, বয়স আনুমানিক ৪৫ বছর।

নিহতরা র‌্যাব সদস্য অনিসুর রহমানের বাড়ি বরিশালে, আর ওমর ফারুকের বাড়ি জয়পুরহাটে।

দুর্ঘটনাকবলিত পিকআপ ভ্যান থেকে বিপুল পরিমাণ ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়েছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে মাগুরা হাইওয়ে পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) লিয়াকত আলী জানান, ঝিনাইদহ থেকে একটি পিকআপ ভ্যান বিপুল পরিমাণ ফেনসিডিল নিয়ে ঢাকার দিকে যাওয়ার গোপন খবর পেয়ে আজ (শুক্রবার) ভোরে একটি মাইক্রোবাস নিয়ে ওই পিকআপ ভ্যানটিকে ঝিনাইদহ থেকে ধাওয়া শুরু করেন র‍্যাব-৬ ঝিনাইদহ ক্যাম্পের তিনজন সদস্য। ভোর ৪টার দিকে মাগুরা সদর উপজেলার রাউতড়া সাঁইত্রিশ নামক স্থানে পৌঁছানোর পর র‍্যাবের মাইক্রোবাসটি ফেনসিডিলবাহী পিকআপ ভ্যানটিকে ওভারটেক করতে যায়। এ সময় পিকআপ ভ্যানের চালক র‍্যাবের মাইক্রোবাসকে ধাক্কা দেয়। এতে মাইক্রোবাসটি রাস্তার পাশে একটি গাছের সঙ্গে ধাক্কা খেয়ে দুমড়ে মুচড়ে যায়। সঙ্গে সঙ্গে ঘটনাস্থলেই র‍্যাব সদস্য আনিসুর রহমান নিহত হন। এসময় গুরুতর আহত হন মাইক্রোবাসে থাকা অপর দুজন র‍্যাব সদস্য।

ওসি লিয়াকত আলী আরও জানান, মাইক্রোবাসে ধাক্কা দেয়ার পর ফেনসিডিল বহনকারী পিকআপ ভ্যানটিও নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে ও ঘটনাস্থলেই উল্টে যায়। এসময় পিকআপ ভ্যান চালক গুরুতর আহত হন। আহতদের হাসপতালে নেয়া হলে র‌্যাব সদস্য ওমর ফারুক এবং পিকআপ ভ্যান চালক আনোয়ান হোসেন মারা যান। এছাড়া গুরুতর আহত র‌্যাব সদস্য নাজমুল হোসেনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়।

সম্পর্কিত সংবাদ

spot_img

সর্বশেষ সংবাদ

spot_img