23 C
Dhaka

২৭ নাটক বৈশাখী ঈদ আয়োজনে যা থাকছে

প্রকাশিত:

তিশা, জোভান, তৌসিফ, ফারিনসহ জনপ্রিয় তারকারা। এছাড়াও রয়েছে ৭টি সিনেমা, জনপ্রিয় শিল্পীদের পরিবেশনায় সংগীতানুষ্ঠান, ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান এবং বিশেষ কমেডি শো ফানি মোমেন্টসহ নানা আয়োজন। প্রতিদিন রাত ৮টা ১০ মিনিট ও রাত ৯টা ৫০ মিনিটে প্রচার হবে দুটি করে একক নাটক। এবার ঈদে ১২টি নাটকের গল্প লিখেছেন পুরস্কারপ্রাপ্ত গল্পকার বৈশাখী টিভির উপব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক টিপু আলম মিলন। এর মধ্যে ৫টি একক ও ২টি ৭ পর্বের ধারাবাহিক এবং ৫টি মেগা নাটক। নাটক ৫টি একক হলো, গোলাম সারোয়ার অনিকের চিত্রনাট্যে নাসিরুদ্দীন মাসুদের পরিচালনায় ‘বিসর্জন’।

অভিনয় করেছেন এফ এস নাঈম, নাজিয়া হক অর্ষা, তানিন সুবাহ, শেলী আহসান প্রমুখ। সুবাতা রাহিক জারিফার চিত্রনাট্যে, জিয়াউর রহমান জিয়ার পরিচালনায় রাশেদ সীমান্ত, অহনা, শফিক খান দিলু, অলিউল হক রুমি অভিনীত ‘বরিশাল টু ঢাকা’, ইউসুফ আলী খোকনের চিত্রনাট্য জামাল মল্লিকের পরিচালনায় ‘কোর্ট ম্যারেজ’ নাটকে অভিনয় করেছেন, ইয়াশ রোহান, নিশাত প্রিয়ম, বড়দা মিঠু, মাসুম বাসার প্রমুখ। আকাশ রঞ্জনের চিত্রনাট্য ও পরিচালনায় ‘পরিণতি’। এতে অভিনয় করেছেন সাঈদ বাবু, তানজিকা আমিন, মারিয়া মিম, প্রিয়াংকা জামান, টাইগার রবি প্রমুখ। আরফান আহমেদের পরিচালনায় ‘বাকর খানি’। এ নাটকের গুরুত্বপূর্ণ দুটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন আরফান আহমেদ ও নাদিয়া মীম।

টিপু আলম মিলনের লিখা ২টি ৭ পর্বের ধারাবাহিক হলো ইউসুফ আলী খোকনের চিত্রনাট্যে, মজিবুল হক খোকনের পরিচালনায় ‘পরিপূর্ণ ভালোবাসা’। অভিনয় করেছেন মুকিত জাকারিয়া, সুমন পাটোয়ারি, উর্মিলা শ্রাবন্তী কর, মৌমিতা মৌ প্রমুখ। আহসান আলমগীরের চিত্রনাট্যে, আল হাজেনের পরিচালনায় ‘শিয়াল বাড়ি-৩’। এতে অভিনয় করেছেন রাশেদ সীমান্ত, মৌসুমী হামিদ, আমিরুল হক চৌধুরী, আরফান আহমেদ, মিলন ভট্ট, স্বর্ণলতা, শেলী আহসান প্রমুখ প্রমুখ।

৫টি মেগা নাটকের মধ্যে- আকাশ রঞ্জনের পরিচালনায় ‘ভাইরাল ভিডিও’, আল হাজেনের পরিচালনায় ‘শিয়াল বাড়ি-২’, আহমেদ রোহান রুবেল ও হানিফ খানের পরিচালনায় ‘বাগান বাড়ি’, এস এ হক অলিকের পরিচালনায় ‘কোরবানীর বিরাট হাট’, আকাশ রঞ্জনের পরিচালনায় ‘বার্থ ডে পুশিং’।

অন্যান্য একক নাটকের মধ্যে বিইউ শুভর পরিচালনায় অপূর্ব, সাবিলা অভিনীত ‘বিপদ সংকেত’, মুহাম্মদ মিফতাহ্ আনানের পরিচালনায় তৌসিফ তানজিন তিশা অভিনতি ‘কোথাও কেউ ভালো নেই’, মহিদুল মহিনের পরিচালনায় ফারান, তানজিন তিশা অভিনীত ‘বেলা শেষে’, ওসমান মির্জার পরিচালনায় নিলয়, সানজানা রিয়া অভিনীত ‘বস যখন গার্ল ফ্রেন্ড’, মুহাম্মদ মিফতাহ্  আনান পরিচালিত তৌসিফ, কেয়া পায়েল অভিনীত ‘পিরিতের ছেড়া খ্যাতা’, ইমরুল রাফাতের পরিচালনায় জোভান, তাসনিয়া ফারিন অভিনীত টুইন ট্রাবল, সবুজ খানের পরিচালনায় শ্যামল মওলা, নাদিয়া খানম  অভিনীত ‘কান্না ঘর’, মৃত্যুঞ্জয় সরদারের পরিচালনায় রাশেদ সীমান্ত, শশী অভিনীত ‘বাবার পুরস্কার’,  সাদেক সিদ্দিকীর পরিচালনায় শিপন মিত্র ও ম্যেমিতা মৌ অভিনীত ‘ভালোবাসার রং তামাশা’। এছাড়াও মহিদুল মহিনের পরিচালনায় আরফান নিশো, মেহেজাবীন অভিনীত নাটকটির নাম এখনো চূড়ান্ত হয়নি।

বৈশাখী টেলিভিশনের নতুন কনসেপ্ট মেগা নাটক, যা বিগত দুই বছর যাবত প্রচার করে আসছে বৈশাখী টিভি। এবারও ঈদের ৭দিন রাত ১১.৩৫মিনিটে প্রচার হবে ৭টি মেগা নাটক। এ নাটকগুলো হলো-কোরবানীর বিরাট হাট, শিয়াল বাড়ি-২, আমার বউ সেলিব্রিটি,পার্শ¦চরিত্র, বার্থডে পুশিং, ভাইরাল ভিডিও।  বৈশাখী টেলিভিশনের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক টিপু আলম মিলন বলেন, বৈশাখী টেলিভিশনের মূল লক্ষ্যই হচ্ছে দর্শকদের বিনোদন দেওয়া। আর বিনোদনপ্রিয় মানুষদের কিছুটা বিনোদন দেয়ার জন্যই আমাদের এ আয়োজন। কতটুকু সফল হতে পারব সে বিচারের ভার বৈশাখী টেলিভিশনের দর্শকদের, যাদের ভালোবাসা আর অনুপ্রেরণায় আমরা এতটা পথ পেরিয়ে এসেছি। তবে এবারের ব্যতিক্রমী আয়োজনে সবশ্রেনীর দর্শক যে বিনোদিত হবে এতে কোনো সন্দেহ নেই।

সম্পর্কিত খবর

সর্বশেষ খবর

spot_img